হামদর্দ ওজন কমানোর ঔষধ; জানুন ৩ টি কার্যকরী   ঔষধের নাম! 

আজকাল নারী-পুরুষ নির্বিশেষে প্রত্যেকেই স্থুলতা বা ওজন বৃদ্ধির সমস্যায় ভুগছেন। ইচ্ছা থাকা স্বত্বেও ব্যস্ততা বা অলসতার কারনে ওজন কমাতে পারছেন না। ওজন কমানোর জন্য অনেকেই খাদ্যাভাসে পরিবর্তন, শরীর চর্চা, মেডিকেশন ইত্যাদি পদ্ধতি  অবলম্বন করে থাকেন। কিন্তু আপনি জানেন কি এ সব কিছুতেই স্থুলতা বা ওজন কমে না, বরং শারীরিক দুর্বলতা সৃষ্টি হয়। 

আজকের আর্টিকেলে আমরা আলোচনা করবো হামদর্দ ওজন কমানোর ঔষধ সম্পর্কে। 

হামদর্দ ল্যারেটরিজ এর ৩ টি কার্যকরী ঔষধ ছাফী সিরাপ, হাল্যাক্স ও লিনা যা স্থুলতা বা ওজন কমানোর পাশাপাশি বিভিন্ন রোগের চিকিৎসায় সাফল্যের সহিত ব্যবহার হয়ে আসছে। চলুন তাহলে শুরু করি। 

হামদর্দ ওজন কমানোর ঔষধ ; ৩ টি কার্যকরী ঔষধ

নিম্নোক্ত ওষুধগুলি সেবনে উল্লেখযোগ্য পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ছাড়ায় আপনি দেহের ওজন কমিয়ে আনতে পারবেন। ওষুধগুলি বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ মেনে সেবন করতে পারেন। 

১. ছাফী সিরাপ

ছাফী সিরাপ প্রকৃতির বিভিন্ন মুল্যবান উপাদানের সমন্বয়ে প্রস্তুত অনন্য ঔষধ। ইহা গুনসম্পন্ন হারবাল পলিফার্মাসিউটিক্যালস ঔষধ। 

ছাফী সিরাপ বিগত ১৯৩৯ সাল থেকে  স্থুলতা বা ওজন কমানোর পাশাপাশি রক্ত ও চর্ম রোগের চিকিৎসায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। চলুন এবার জেনে নেয়া যাক ছাফী সিরাপের উপকারিতা, পুষ্টি উপাদান, খাওয়ার নিয়ম ও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া সম্পর্কে। 

ছাফী সিরাপের উপকারিতা 

  • ছাফী সিরাপ প্রাকৃতিক রক্ত পরিশোধন হিসেবে বিশেষ উপকারী। 
  • ইহা পরিপাকতন্ত্রকে উদ্দীপ্ত করার মাধ্যমে অন্ত্রের গতি বৃদ্ধি করে। 
  • ছাফী সিরাপ নাক দিয়ে রক্ত পড়া বন্ধ করে। 
  • ইহা কোষ্ঠকাঠিন্য নিরাময়ে বেশ উপকারী। 
  • ছাফী সিরাপ কোষস্থ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতে বিশেষ ভুমিকা রাখে। 
  • ইহা বিভিন্ন চর্মরোগ যেমন ব্রণ, ফোড়া, ফুসকুড়ি, একজিমা, সোরাইসিস,খোস পাঁচরা এবং চুলকানি নিরাময়ে উপকারী। 
  • এছাড়াও এই সিরাপ ঋতু পরিবর্তনকালীন বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধে কার্যকর ভূমিকা পালন করে। 

ছাফী সিরাপের পুষ্টি উপাদান 

ছাফী সিরাপ বিভিন্ন প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে তৈরি। যেমন-

  • সোনা পাতা 
  • রেউচিনি
  • তেউরী মূল
  • কালকাসুন্দে
  • তুলসী
  • গোলাপ ফুল 
  • মুন্ডীরী ফুল 
  • ক্ষেতপাপড়া
  • নীলকন্ঠী
  • শাপলা ফুল 
  • অপরাজিতা 
  • নাগদনা
  • শিশু পাতা 
  • গুলঞ্চ 
  • রক্ত চন্দন 
  • হরিতকী 
  • কালমেঘ 
  • একাঙ্গী
  • চিরতা 
  • রক্ত কাঞ্চন 
  • নিম এবং হলুদ। 

ছাফী সিরাপের সেবন বিধি 

প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের জন্য ২ থেকে ৪ চা চামচ (১০-২০ মিলি) দৈনিক এক থেকে দুই বার সেবন যোগ্য। 

আর অপ্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য ১/২-১ চা চামচ (২.৫-৫ মিলি) দৈনিক এক থেকে দুই বার সেব্য।

ছাফী সিরাপ সকালে এক কাপ দুধ বা পানি অথবা ফলের রসের সাথে সেবন করতে হবে। তবে এই ঔষধ সেবনের পূর্বে একজন বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ অবশ্যই নিতে হবে 

ছাফী সিরাপের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া 

একজন রেজিস্টার্ড চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী নির্ধারিত সময়ে সঠিক মাত্রায় এই ঔষধ সেবনে কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয় না। 

তবে এই সিরাপ সেবনকালীন কিছু সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। যেমন-

ক্ষুধার পরিমাপের চেয়ে কম খেতে হবে এবং মসলা, ভাজা পোড়া ও গুরুপাক খাবার পরিহার করতে হবে। 

২.হাল্যাক্স

হাল্যাক্স কোষ্ঠকাঠিন্য ও স্থুলতা বা ওজন কমানোর চিকিৎসায় অত্যন্ত কার্যকরী ঔষধ। হাল্যাক্স বিভিন্ন প্রাকৃতিক উপাদান যেমন ঘৃতকুমারী, গোলমরিচ, খোরাসানী জৈন, সোহাগা ইত্যাদি দিয়ে তৈরি অনন্য ট্যাবলেট। চলুন জেনে নিই হাল্যাক্স ট্যাবলেট এর কার্যকারিতা, সেবন বিধি ও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া সম্পর্কে। 

হাল্যাক্স ট্যাবলেট এর কার্যকারিতা

  • হাল্যাক্স স্থুলতা বা ওজন কমানোর পাশাপাশি পুরনো কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে। 
  • ইহা কোষ্ঠকাঠিন্য জনিত পেট ব্যথা নিরাময় করে। 
  • হাল্যাক্স পেট ফাঁপা, অরুচি এবং পেটের মেদ বা চর্বি কমাতে বিশেষ উপকারী। 
  • হাল্যাক্স ট্যাবলেট নিয়মিত সেবনে পেটের মেদ-ভুড়ি কমে যায়। 
  • এই ট্যাবলেট অতিরিক্ত কোলেষ্টেরল কমাতে সাহায্য করে। 
  • এছাড়াও হাল্যাক্স পেটের জমে থাকা মল নিষ্কাশনে সাহায্য করে ক্ষুধা বৃদ্ধি করে থাকে।  

হাল্যাক্স ল্যাবলেট এর সেবন বিধি 

একজন রেজিস্টার্ড চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী ১ থেকে ২ টা ট্যাবলেট রাতে ঘুমানোর আগে দুধসহ সেবন করতে হবে। 

হাল্যাক্স ট্যাবলেট এর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া

হাল্যাক্স ট্যাবলেট যেহেতু সম্পুর্ণ প্রাকৃতিক গাছ গাছরার নির্যাস থেকে তৈরি তাই এই ঔষধ সেবনে কোন উল্লেখযোগ্য পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া পরিলক্ষিত হয় না। 

৩.লিনা

লিনা ওজন হ্রাস ও অপুষ্টির চিকিৎসায় অত্যন্ত কার্যকর। লিনা স্পিরুলিনা নামক এক প্রকার অণুবীক্ষনিক নীলাভ সবুজ শৈবালের শুষ্ক পাউডার দ্বারা তৈরি ক্যাপসুল। ইহা বহুমুখী গুণসম্পন্ন হারবাল ক্যাপসুল। 

লিনাতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ খনিজ উপাদান যেমন প্রোটিন, ভিটামিন, মিনারেল, ট্রেস এলিমেন্টস, উদ্ভিজ্জ রঞ্জক পদার্থ যেমন বিটাক্যারোটিন, এন্টিঅক্সিডেন্ট, এনজাইম বিদ্যমান। এবার জেনে নিন লিনা ক্যাপসুলের উপকারিতা, সেবন বিধি ও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া সম্পর্কে। 

লিনা ক্যাপসুলের উপকারিতা

  • লিনা ওজন হ্রাস করতে সাহায্য করে। 
  • ইহা সুস্বাস্থ্য ও নীরোগ জীবন নিশ্চিত করে। 
  • এই ক্যাপসুল অপুষ্টি দূর করে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। 
  • লিনা কোলেস্টেরল মাত্রা বৃদ্ধি রোধ করে এবং ভিটামিন ও খনিজ উপাদানের ঘাটতি পূরণ করে। 
  • এই ক্যাপসুল এন্টিবায়োটিক সেবন জনিত অসুস্থতা দূর করে থাকে।
  •  ইহা মাতৃদুগ্ধ নিঃসরণ হ্রাস এবং চর্মরোগ, চুল পড়া চিকিৎসায় কার্যকর। 
  • লিনা শিশু থেকে শুরু করে সকল প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের জন্য আদর্শ হারবাল ওষুধ। 

লিনা ক্যাপসুলের সেবন বিধি

একজন বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী লিনা ৫০০ মিগ্রা ১ টি ক্যাপসুল দৈনিক দুই বার সেবন যোগ্য।

আর ২৫০মিগ্রা ২ টি ক্যাপসুল দৈনিক দুই বার সেব্য। 

লিনা ক্যাপসুলের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া 

অভিজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী নির্ধারিত সময়ে সঠিক মাত্রায় সেবনে এই ওষুধের কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয় না। 

তবে এই ওষুধ অতিরিক্ত মাত্রায় সেবনে পরিপাকতন্ত্রের কিছু সমস্যা যেমন বমি-বমি ভাব দেখা দিতে পারে। 

কোথায় পাবেন হামদর্দ এর ওষুধ 

হামদর্দ ল্যাবরেটরিজ এর সকল ওষুধ ও পন্য আপনারা খুব সহজেই পেতে পারেন হেলদি স্পোর্টস অনলাইন শপে। হামদর্দ এর সকল পন্য কেনাকাটার জন্য হেলদি স্পোর্টস একটি নির্ভরযোগ্য প্রতিষ্ঠান। আপনারা দেশের যে কোন প্রান্ত থেকে ঘরে বসেই অর্ডার করতে পারেন এখানে। 

উপসংহার 

সব শেষে বলা যায় পেটে মেদ বা চর্বি যেমন শারীরিক সমস্যা সৃষ্টি করে তেমনি সৌন্দর্য নষ্ট করে দেয়। হামদর্দ ওজন কমানোর ঔষুধ ছাফী সিরাপ, হাল্যাক্স ও লিনা অত্যন্ত কার্যকর। এ সকল ঔষধ প্রকৃতির মুল্যবান উদ্ভিদের নির্যাস থেকে তৈরি যা পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া মুক্ত এবং আপনি সহজেই সেবন করতে পারবেন। তাই স্থুলতা বা ওজন কমানোর জন্য একজন অভিজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে হামদর্দ এর ঔষধ সেবন করুন এবং ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখুন। 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top